শনিবার , জুলাই ২০, ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ

আরব আমিরাতে বাংলাদেশী প্রবাসিদের মানবেতর জীবন : দূতাবাস নির্বিকার

আবুধাবি প্রতিবেদক
প্রবাসিদের পাঠানো অর্থে বাংলাদেশের ঈর্ষণীয় অগ্রযাত্রায় বিশাল ভূমিকা থাকলেও তাদের সমস্যা সঙ্কটে অধিকাংশ সময় এগিয়ে আসে না বাংলাদেশে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূতগুলো। সম্প্রতি সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে ৮৫ জন বাংলাদেশী প্রবাসির মানবিক বিপর্যয়ের করুণ কাহিনীগাঁথা লিখিত অভিযোগ ও আবেদন পাবার পরও দূতাবাসের কোন কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি বলে আবুধাবি থেকে বিশেষ প্রতিবেদক খবর পাঠিয়েছেন।
সূত্র জানায়, আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিতে আল মনসুরি ৩ বি এলএলসি নামে স্থানীয় একটি কোম্পানিতে পাঁচ শতাধিক শ্রমিক কর্মরত আছে। এর মধ্যে বাংলাদেশী ৮৫ জন শ্রমিক দীর্ঘ ৯ মাস যাবত কোনোরূপ বেতন ভাতা পাচ্ছে না। বেতনের দাবি করলে কোম্পানি কর্তৃপক্ষ নানা তালবাহানা এবং হয়রানি করে আসছে। সেই কোম্পানিতে কর্মরত বাংলাদেশের জামালপুর জেলার বাসিন্দা নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জনৈক শ্রমিক কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, ওই কোম্পানির বিরুদ্ধে মামলা করেছি। বিষয়টি নিয়ে আমিরাত সরকারের মিনিস্ট্রি অব হিউম্যান রিসোর্স অ্যান্ড এমিরাটাইজেশনকে অবগত করা হলেও তারা কোনো ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি। তিনি বলেন, আমাদের টাকায় দেশে পরিবার পরিজনের ভরণ পোষণের পাশাপাশি দেশের উন্নয়নে ভূমিকা রাখলেও আমাদের বর্তমান মানবিক বিপর্যয়কর পরিস্থিতিতে দূতাবাসকে লিখিতভাবে জানানো হলেও তারা নির্বিকার। এখন পর্যন্ত কোনরূপ পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয় নাই। অন্যান্য দেশের দূতাবাসগুলো তাদের নাগরিকদের থাকা, খাওয়ার ব্যবস্থা করলেও বাংলাদেশী দূতাবাস এ ব্যপারে ন্যূনতম দায়িত্ব পালন করছে না। আমাদের অনেকেরই ভিসার এবং মেডিকেল কার্ডের মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ায় বাইরে চলাফেরা করতে পারছে না। চিকিৎসাসেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। একদিকে বিদেশের মাটিতে আমরা অনিশ্চিত এক অন্ধকার ভবিষ্যতের দিকে যাচ্ছি, অন্যদিকে দেশে আমাদের পরিবার পরিজন টাকা পয়সা না পেয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। প্রবাসি বাংলাদেশীরা মানবতার মা বলে খ্যাত প্রধানমন্ত্রি শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

error: Content is protected !!