মঙ্গলবার , ডিসেম্বর ১১, ২০১৮
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ

ইসলামপুরে হাজিরা খাতায় অনুপস্থিত লেখায় শিক্ষক লাঞ্চিত


লিয়াকত হোসাইন লায়ন, স্টাফ করসপনডেন্ট, ইসলামপুর
জামালপুরের ইসলামপুরে হাজিরা খাতায় অনুপস্থিত লেখায় হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক কর্তৃক প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক লাঞ্চিত হওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
অভিযোগে জানাগেছে, উপজেলার লক্ষীপুর জুলফিকার জাহানারা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সালমা আক্তার অনিয়মিত ভাবে বিদ্যালয়ে আসা যাওয়া করেন। এতে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হালিম উধ্বর্তন কতৃপক্ষের নির্দেশে সহকারী শিক্ষিকা সালমা বেগমকে বারবার মৌখিক ভাবে সতর্ক করেন। তারপরেও অনিয়মিত ভাবে স্কুলে আসা যাওয়া করায় তাকে হাজিরা খাতায় অনুপস্থিত দেখান। এতে সহকারী শিক্ষিকার স্বামী হাজী ফুল মাহমুদ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আলতাফুর রহমান ক্ষুব্ধ হয়ে লক্ষীপুর জুলফিকার জাহানারা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হালিম কে মোবাইল ফোনে ইসলামপুর থানা মোড়ে ডেকে নিয়ে মাসের বিবরনীতে কি লেখা আছে দেখতে চায়। মাসিক বিবরনীতে তার স্ত্রীর অনুপস্থিত দেখে প্রধান শিক্ষক হালিমকে কিল ঘুষি মেরে লাঞ্চিত করে। এ সময় অন্যান্য শিক্ষক পরিস্থিতি শান্ত করেন। এ সময় তাকে দেখে নেওয়ার হুমকিও দেওয়া হয়।
প্রধান শিক্ষক হালিমের অভিযোগ সরকারী দায়িত্ব পালন করতেই আমার স্কুল সংলগ্ন হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক আলতাফুর কর্তৃক আমাকে শারিরিক নির্যাতন হতে হয়েছে। তিনি প্রশাসনের নিকট সুষ্ঠু বিচারের দাবী জানিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর একটি আবেদন করেছেন।
এ ব্যাপারে প্রধান শিক্ষক আলতাফুর আরেক শিক্ষককে লাঞ্চিত করার কারন জানতে চাইতে তিনি বলেন, এমনিই একটু ঘাড় ধরে ধাক্কা দিয়েছি। তার গায়ে হাত তুলিনি।
এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মিজানুর রহমান জানান, অভিযোগ পেয়েছি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করার জন্য প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।