বুধবার , আগস্ট ২১, ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ

বাংলাদেশ এখন ভিক্ষা নেয় না, ভিক্ষা দেয় : প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম


মোস্তাক আহমেদ মনির, সরিষাবাড়ী
বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী আলহাজ মির্জা আজম এমপি বলেছেন, বাংলাদেশ এখন ভিক্ষুকের জাতি নয়, আমরা এখন আর ভিক্ষা নেই না, দেই। আগে যারা বিদেশে কাজ করতে গিয়ে ভিক্ষুকের জাতি বলে মাথানত করে থাকতো, আজ তারাই মাথা উচু করে চাকরি করছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতির স্বার্থে ২৪ ঘন্টার মধ্যে ১৯ ঘন্টাই কাজ করেন। যার কারণে ডিজিটাল বাংলাদেশ এখন আর স্বপ্ন নয়, বাস্তব। দেশের ১৬ কোটি মানুষের মধ্যে ১১ কোটি মানুষই এখন স্মার্টফোন ইন্টারনেট ব্যবহার করে। এই দিক থেকে বাংলাদেশ আজ বৃটেনের চেয়েও এগিয়ে।
শুক্রবার বিকেলে বঙ্গবন্ধুর অন্যতম সহচর, মুজিবনগর সরকারের অস্থায়ী বিচারপতি ও মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক প্রয়াত এডভোকেট মতিয়র রহমান তালুকদারের ১০ম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে অনুষ্ঠিত স্মরণসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম এসব কথা বলেন। উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও এডভোকেট মতিয়র রহমান তালুকদার স্মৃতি সংসদ আওনা ইউনিয়নের দৌলতপুর গ্রামে মতিয়র রহমান তালুকদার কলেজ মাঠে এ স্মরণসভার আয়োজন করে। এ সময় তিনি আরো বলেন, বিএনপি-জামায়াতসহ স্বাধীনতার বিরোধীরা দীর্ঘ ২১ বছর ক্ষমতায় থেকে দেশকে, দেশের মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ভুলুন্ঠিত করে রেখে ছিলো। আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে পুনরুজ্জীবিত করেছে। যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের মধ্যদিয়ে জাতীকে কলঙ্কমুক্ত করা হয়েছে। মুক্তিযোদ্ধাদের চিকিৎসা ব্যায় ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত মওকুফ ও তাদের সম্মানী ভাতা বৃদ্ধি করে মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানিত করা হয়েছে। বীর প্রতীক আব্দুল হাকিম স্মরণসভায় সভাপতিত্ব করেন। প্রয়াত মতিয়র রহমান তালুকদারের ছেলে জেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক সাবেক এমপি ডা. মুরাদ হাসানের সঞ্চালনায় এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট মোহাম্মদ বাকী বিল্লাহ্, সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক আহমেদ চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক ছানোয়ার হোসেন ছানু, ইঞ্জিনিয়ার মোজাফফর হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ ছানোয়ার হোসেন বাদশা, সাধারণ সম্পাদক উপাধ্যক্ষ হারুন-অর-রশিদ, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার সুজাত আলী ফকির, প্রয়াত মতিয়র রহমান তালুকদারের ভাই এডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান তালুকদার দিপু প্রমুখ।

error: Content is protected !!