সোমবার , জুলাই ১৬, ২০১৮
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ

মার্চের আগে আসছে না পদ্মাবতী

বিনোদন ডেস্ক:

বিগ বাজেটের ছবি ‘পদ্মাবতী’। অনেক আলোচনার জন্ম দিয়ে শহিদ কাপুর, দীপিকা পাড়ুকোন ও রণভীর সিংকে নিয়ে এই ছবির কাজ শুরু করেছেন ব্যাতিক্রমী ভাবনার নির্মাতা সঞ্জয়লীলা বানশালী। এরইমধ্যে ছবির কাজ শেষে। এর ট্রেলার ও গানও প্রকাশ হয়েছে এবং পেয়েছে দারুণ গ্রহণযোগ্যতা।

কথা ছিলো ছবিটি ১ ডিসেম্বরেই মুক্তি পাবে। কিন্তু ভারতীয় কট্টর হিন্দুবাদী কিছু সংগঠনের রোষানলে পড়ে আটকে গেল ছবিটির মুক্তি। বেশ কিছু আপত্তির মুখে ছবিটিকে সেন্সর মুক্তির অনুমতি দিচ্ছে না। যার ফলে বেশ কয়েকবার পরিবর্তিত হয়েছে মুক্তির তারিখ। এবার এই কথাও উঠছে বলিউডে ছবিটি কী আদৌ মুক্তি পাবে?

ছবির শুটিং পর্ব থেকেই আপত্তি তুলেছিল রাজপুত করণী সেনারা। অভিযোগ, এই ছবিতে রাজপুতদের ইতিহাসকে বিকৃত করা হয়েছে। পরিচালককে মারধর, দীপিকার মাথার দাম ঘোষণা, পোস্টার পোড়ানো থেকে শুরু করে তীব্র আন্দোলনে নামে করণী সেনারা। তারই প্রেক্ষিতে ছবিটি আটকে আছে সেন্সরে। তবে ছবিটির মুক্তি নিয়ে বেশ বিব্রতকর অবস্থায় রযেছে ইন্ডিয়ার সেন্সর বোর্ড। কারণ বলিউডের মানুষেরা সমালোচনা করছেন ‌‘পদ্মাবতী’ আটকে দেয়ায়।

বাধ্য হয়েই এবার ইতিহাসবিদদের সাহায্য নিতে চায় সিবিএফসি, খবর ইন্ডিয়া টাইমসের। বিশেষজ্ঞদের একটি প্যানেল তৈরি করে ‘পদ্মাবতী’ ছবিটি তাদের দেখানো হতে পারে। বোর্ডসূত্রে দাবি করা হয়েছে, ছবির বিষয় খুঁটিয়ে দেখবেন ইতিহাসবিদরা। এর পরই ছবির ছাড়পত্র নিয়ে চিন্তাভাবনা করা হবে। ডিসেম্বর প্রায় শেষ। সেক্ষেত্রে জানুয়ারির আগে এই কাজ হবে না।

পাশাপাশি, পদ্মাবতীর আগে আরও চল্লিশটি ছবি রয়েছে ছাড়পত্রের আশায়। তাই দীপিকাকে তার দুর্দান্ত এই ছবিটির জন্য অপেক্ষা করতে হবে মার্চ বা এপ্রিল পর্যন্ত।

সূত্র: জাগোনিউজ২৪ ডটকম